Tuesday, January 04, 2022

গুইমারায় সেনাবাহিনী কর্তৃক মারধর, তল্লাশি ও আটকের শিকার নিরীহ গ্রামবাসীরা

 
গুইমারা প্রতিনিধি ।। খাগড়াছড়ির গুইমারা উপজেলারধীন ২নং হাফছড়ি ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডের কালাপানি পাড়া ও তবলা পাড়ায় সেনাবাহিনী কর্তৃক অন্তত ১০ গ্রামবাসীকে মারধর, দুই জনের বাড়িতে তল্লাশি ও ১ জন আটকের শিকার হয়েছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। তবে আটক ব্যক্তিকে দীর্ঘ ৬ ঘন্টা পর মুক্তি দেওয়া হয় বলে জানা গেছে।

জানা যায়, গতকাল সোমবার (৩ জানুয়ারি ২০২২) রাতে গুইমারা ব্রিগেড ও বাটনাতলী সেনা ক্যাম্প থেকে একদল সেনা সদস্য কালাপানি ও তবলা পাড়ায় হানা দেয়। রাত ৮টার সময় সেনারা কালাপানি গ্রামের বাসিন্দা মোটর সাইকেল চালক রাপ্রুচাই মারমাকে আটক করে। পরে রাত ১২টার সময় সেনারা অংগ্য মারমা ও রিপ্রু মারমার বাড়িতে তল্লাশি চালায়।

এ সময় সেনারা মোটর সাইকেল চালক সাথোয়াই প্রু মারমা, মংক্যচিং মারমা ও অংসা মারমা এবং সাধারণ খেটে খাওয়া ম্রাসাউ মারমা, আতাহ মারমা, রাজু মারমা, চিনুমং মারমা এবং বুদং পাড়া থেকে আরো ২ জনকে মারধর করে।

সেনা সদস্যরা তবলা পাড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষকদেরকে হুমকি দেয় এবং বিদ্যালয়ে ভাংচুরের চেষ্টা চালায় বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

সেনারা আটক রাপ্রুচাই মারমাকে দীর্ঘ ৬ ঘন্টর ২টায় ছেড়ে দেয় বলে জানা গেছে।

---

No comments: