Saturday, May 14, 2022

রামগড়ে শিক্ষক কর্তৃক ৫ম শ্রেণির পাহাড়ি ছাত্রীকে শ্লীলতাহানির অভিযোগ!

রামগড় প্রতিনিধি, সিএইচটি নিউজ
শনিবার, ১৪ মে ২০২২

অভিযুক্ত শিক্ষক বেলায়েত হোসেন


খাগড়াছড়ির রামগড়ে শিক্ষক কর্তৃক ৫ম শ্রেণীতে পড়ুয়া এক পাহাড়ি ছাত্রীকে শ্লীলতাহানির অভিযোগ পাওয়া গেছে।

গত বৃহস্পতিবার (১২ মে ২০২২) ১নং রামগড় ইউনিয়নের থানাচন্দ্র পাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে এ ঘটনা ঘটে বলে জানা যায়।

অভিযুক্ত শিক্ষকের নাম মো. বেলায়েত হোসেন (৪২)। তিনি একই ইউনিয়নের লামকুপাড়া এলাকার নুরুল হুদার ছেলে ও ঐ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক।

উক্ত ঘটনায় ভুক্তভোগী ওই ছাত্রীর মা রামগড় থানায় শিক্ষক বেলায়েত হোসেনের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।

অভিযোগে জানা যায়, ঐদিন (বৃহস্পতিবার) বিদ্যালয় ছুটির পর শিক্ষক বেলায়েত হোসেন বাড়ির কাজ দেখানোর কথা বলে ঐ ছাত্রী সহ অপর এক ছাত্রীকে ক্লাসরুমে থাকতে বলে। পরবর্তিতে শিক্ষক বেলায়েত হোসেন ঐ দুই ছাত্রীকে শ্রেণিকক্ষে ডেকে নিয়ে একজনকে ১ম বেঞ্চে এবং অপরজনকে পিছনের বেঞ্চে বসিয়ে হাতের লেখা লিখতে বলেন। এসময় বেলায়েত হোসেন পিছনের বেঞ্চে বসা ছাত্রীর পাশে বসে তার র্স্পশকাতর স্থানে হাত দিয়ে শ্লীলতাহানি করেন। পরে তিনি ভুক্তভোগী ওই ছাত্রীকে বিদ্যালয়ের বাইরে এনে হাতে একশ টাকার একটি নোট দিয়ে কাউকে কিছু না বলার কথা বলে বাড়িতে পাঠিয়ে দেন।

বাড়িতে ফিরে এসে ওই ছাত্রী শিক্ষক কর্তৃক শ্লীলতাহানির কথা তার মাকে জানায়। পরে তার মা ঘটনাটি এলাকার কার্বারি ত্রিপুরা কল্যাণ সংসদের নেতৃবৃন্দকে ঘটনাটি জানান।

এ ঘটনায় শুক্রবার (১৩ মে) ভুক্তভোগী ছাত্রীর মা রামগড় থানায় শিক্ষক বেলায়েত হোসেনের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

রামগড় থানার ওসি মোহাম্মদ শামছুজ্জামান বলেছেন, শিক্ষকের বিরুদ্ধে ছাত্রীকে যৌন নিপীড়নের অভিযোগ পাওয়া গেছে। ইতোমধ্যে ভিকটিমের বক্তব্য নেওয়া হয়েছে এবং মামলার প্রক্রিয়া চলছে বলেও তিনি জানান।

এদিকে উক্ত ঘটনায় এলাকার অভিভাবক ও স্থানীয় এলাকাবাসী উদ্বেগ ও ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। তারা অভিযুক্ত শিক্ষকের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানিয়েছেন। অন্যথায় কোন ছেলে মেয়েকে তারা আর ওই স্কুলে পাঠাবেন না বলে জানিয়ে দিয়েছেন।

---


No comments: